India is going to build best own operating system 2022| ভারত কেন নিজের Operating System তৈরি করবে ?

Rate this post

ভারত একটি নতুন নিজের own operating system OS(operating system), জেটি প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবে Android & ios কে। যাতে Android এবং iOS-এর বিকল্প হিসাবে একটি দেশীয় OS তৈরি করা যায়। তাহলে আসুন এই বিষয়ে বিস্তারিত নিচে আলোচনা করা যাক>>

Operating System কি ?

Operating System হ’ল যে কোনও কম্পিউটার এবং মোবাইল ডিভাইসের প্রধান সফ্টওয়্যার যা OS-এর কার্যকরী কার্যকারিতার জন্য সমগ্র হার্ডওয়্যার এবং সফ্টওয়্যার একত্রে কাজ করে। উদাহরণ সারুপ –Windows, Android, iOS, macOS, Linux ইত্তাদি জনপ্রিয় কিছু Operating System এর উদাহরণ। এগুলি ডেক্সটপ, ট্যাবলেট, মোবাইল ও ল্যাপটপ এর মত কম্পিউটার ডিভাইস গুলিতে সফটওয়্যার ও হার্ডওয়্যার এর মধ্যে সামঞ্জস্য গড়ে তলে।

ভারাত কেন Own Operating System তৈরি করবে ?

  • ভারাত সিস্টেমের নিরাপত্তা বাড়ানোর জন্য এর আগেও 2010 সালে ভারত সরকার তার কম্পিউটার সিস্টেমের নিরাপত্তা বাড়ানোর লক্ষ্যে একটি নতুন কম্পিউটার অপারেটিং সিস্টেম তৈরি করার জন্য কাজ করেছিল।
  • উইন্ডোজ এবং অ্যাপলের আইওএসের বিকল্প হিসাবে একটি দেশীয় অপারেটিং সিস্টেম তৈরি করা যায়”। তাতে ভারতের একনমি বৃদ্ধি পাবে।
  • সরকারি ও বেসরকারী কারিগরি সংস্থাগুলি এবং একাডেমিক প্রতিষ্ঠানগুলি একটি ভারতীয় মোবাইল ওএসে এক সাথে কাজ করবে। যা Android এবং iOS এর সাথে প্রতিযোগিতা করতে পারবে৷
  • Operating System গুলি চালনা করা ও প্রয়োজনে upgread করার বেপারে বিদেশি কম্পানির উপর নিরভর থাকতে হবে না।
  • ইকনমিক দিক দিয়ে এগিয়ে থাকতে হলে নিজেশ্য অপারেটিং সিস্টেম থাকা জরুরি।
  • সিস্টেম বেবহার কারির ইউজার এন্টারফেস সহজ থেকে সাহজতর করে তুলতে এই প্রচেষ্টা ।
  • ভারাত তার নিজের অপারেটিং সিস্টেম তৈরি করলে তাতে আঞ্ছলিক ভাষা সামদ্ধিত থাকবে।

এছারাও আর বিভিন্ন কারনে ভারত তার দেশীয় অপারেটিং সিস্টেম তৈরি করার কারন জানিয়েছে সেগুলি সম্মান্ধে নিচে জানান হল।

সোমবার কেন্দ্রীয় ইলেকট্রনিক্স এবং আইটি প্রতিমন্ত্রী রাজীব চন্দ্রশেখর বলেছেন “অ্যান্ড্রয়েড এবং অ্যাপলের আইওএসের বিকল্প হিসাবে একটি দেশীয় অপারেটিং সিস্টেম তৈরি করা যায়”। অ্যান্ড্রয়েড, আইওএস-এর প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য ভারতের নজর রয়েছে স্বদেশে তৈরি OS সের উপর। ভারতের ইলেকট্রনিক্স এবং তথ্য প্রযুক্তির বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী চান যে – বেসরকারী কারিগরি সংস্থাগুলি এবং একাডেমিক প্রতিষ্ঠানগুলি একটি ভারতীয় মোবাইল ওএসে এক সাথে কাজ করবে। যা Android এবং iOS এর সাথে প্রতিযোগিতা করতে পারে৷


চন্দ্রশেখর বললেন- “অনেক উপায়ে MeitY এবং ভারত সরকারের মধ্যে একটি নতুন হ্যান্ডসেট অপারেটিং সিস্টেম তৈরি করার জন্য প্রচুর আগ্রহ রয়েছে। আমরা উপভোক্তাদের সাথে কথা বলছি। আমরা এর জন্য একটি নীতি দেখছি।”
চন্দ্রশেখর বলেন, “স্পষ্ট লক্ষ্য থাকা গুরুত্বপূর্ণ। একবার আমাদের লক্ষ্য স্পষ্ট থাকে এবং আমাদের যা অর্জন করতে হবে সেটি স্পষ্ট হয়, তাহলে সমস্ত নীতি এবং কর্মগুলির সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ হবে।” তিনি যোগাযোগ ও আইটি মন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণবের সাথে শিল্প সংস্থা ICEA দ্বারা প্রস্তুত ইলেকট্রনিক্স ম্যানুফ্যাকচারিং সম্পর্কিত ভিশন ডকুমেন্টের দ্বিতীয় খণ্ড প্রকাশ করেছেন যার সদস্যদের মধ্যে রয়েছে Apple, Lava, Foxconn, Dixon ইত্যাদি। 

বিভিন্ন শিল্প বিশ্লেষকরা অবিলম্বে জানান যে ভারত অ্যাপল বা অ্যান্ড্রয়েডের মোবাইল প্ল্যাটফর্মের সাথে প্রতিযোগিতা করতে পারে।

জেক গোল্ড (অ্যাসোসিয়েটসের প্রধান বিশ্লেষক)’ তিনি বলেন যে- ভারত একটি প্রতিযোগীতা তৈরি করার চেষ্টা করছে এবং দেশের মধ্যে আরও প্রযুক্তি ও শিল্প চালু করার চেষ্টা করছে, তিনি আরো বলেন- “প্রতিযোগিতাটির সত্যিই অসম্ভাব্য কারন এটি অ্যান্ড্রয়েড এবং বিশেষ করে iOS-এর মধ্যে৷ “

  • Xiaomi এর তৈরি কুকুর এর মত দেখতে রোবট এর সম্মন্ধে জানতে ক্লিক করুন

এটি ভারতের নিজস্ব অপারেটিং সিস্টেম তৈরির প্রথম প্রচেষ্টা নয়। ভারত ইতিমধ্যেই কম্পিউটারের জন্য দুটি অপারেটিং সিস্টেম চালু করেছে যা হল স্মার্ট ফোন জন্য Indus OS এবং BOSS (ভারত অপারেটিং সিস্টেম সলিউশন) । আসুন সেগুলি সম্মান্ধে আর বিষদ জেনেনিন।

Indus Os কি ?

Indus Os একটি মোবাইল অপারেটিং সিস্টেম। এটি সামান্য কয়েকটি মোবাইল কোম্পানির সঙ্গে কাজ করছে যেমন Micromax, Intex, celkon, karbonn ইত্যাদি। আসুন ইন্দাস সমান্ধে আর বিশদ জেনে নিন।

Indus OS এর বৈশিষ্ট্য

  • শব্দ এবং মাত্রার ভবিষ্যদ্বাণী – শব্দের ভবিষ্যদ্বাণীর পাশাপাশি, OS আঞ্চলিক ভাষায় স্বরধ্বনি ক্যাপচার করার জন্য Matra-এর ভবিষ্যদ্বাণীও করে।
  • Indus Reader – 9টি আঞ্চলিক ভাষায় একটি OS । এটিতে ইন্টিগ্রেট আছে টেক্সট টু স্পিচ ফিচার।
  • Indus মেসেজিং – এই বৈশিষ্ট্যটি Indus OS ব্যবহারকারী, অন্যান্য ব্যবহারকারীদের বিনামূল্যে পাঠ্য বার্তা পাঠাতে সাহায্য করে।
  • হাইব্রিড কীবোর্ড – Indus OS ব্যবহারকারী ইংরেজি কীবোর্ড ব্যবহার করেও একটি আঞ্চলিক ভাষায় টাইপ করতে পারে।
  • রিচার্জ 2.0 – Indus OS ফ্রিচার্জে রয়েছে “রিচার্জ 2.0” যেটি চালু করে ব্যবহারকারীদের ডেটা এবং কলিং ব্যবহার ট্র্যাক করতে এবং ফ্রিচার্জ ওয়ালেট ব্যবহার করে তাদের প্রিপেইড সংযোগগুলি রিচার্জ করার সুবিধা রয়েছে।
  • Indus OS আঞ্চলিক ভাষায় টাইপ করতে পারবেন এবং ডেভেলপাররা তাদের আঞ্চলিক ভাষায় অ্যাপ প্রকাশ শুরু করতে পারে।

Bharat Operating System Solution (BOSS) কি ?


ভারত ইতিমধ্যেই কম্পিউটারের জন্য দুটি অপারেটিং সিস্টেম চালু করেছে যা হল BOSS 
BOSS হল একটি GNU/linux ভিত্তিক ওপেন সোর্স অপারেটিং সিস্টেম যা ভারত সরকার দ্বারা অনুমোদিত CDAC (সেন্টার ফর ডেভেলপমেন্ট অফ অ্যাডভান্স কম্পিউটিং) দ্বারা তৈরি। প্রাথমিকভাবে এটি 10 ​​ই জানুয়ারী 2007 এ প্রকাশিত হয়েছিল, পরে এটি 5টি প্রধান সংস্করণ আপডেট পেয়েছে, সর্বশেষ প্রকাশ করা হয়েছে BOSS Advanced Server and BOSS MOOL, latest stable 8.0 (“Unnati”) ভার্সন টি। আবিষ্কারের পিছনে মূল উদ্দেশ্য ছিল সাইবার আক্রমণ থেকে ভারতীয় আইটি যন্ত্রপাতি হ্যাক প্রমাণ করা।

BOSS (Bharat Operating system solution) এর বৈশিষ্ট্য ?

এটি ভারতীয় ভাষা সমর্থন এবং অন্যান্য সফ্টওয়্যারের সাথে একীভূত ডেস্কটপ পরিবেশ উন্নত করেছে।
চীন এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বিপর্যয় সৃষ্টিকারী হ্যাকগুলি…।

Official website Click here

আমি সৌভিক মৃধা, আমি ২০২০ সালে আমার স্নাতক পাশ করি, তারপর বিগত কয়েক বছর ধরে ব্লগিং করছি এবং আমি নতুন প্রযুক্তি বা নতুন নতুন তথ্য সম্পর্কে জানতে ভালোবাসি। বর্তমানে আমি অন্য ওয়েবসাইট জন্য এবং আমার নিজের ওয়েবসাইটের জন্য আর্টিকেল লিখছি।

Leave a Comment